বুধবার, মে ২৫, ২০২২

Close

Home শিল্প-সাহিত্য উপন্যাস চিরায়ত গ্রামীণ চিত্রের সেলুলয়েডে যুগের 'সেরা চলচ্চিত্র'

চিরায়ত গ্রামীণ চিত্রের সেলুলয়েডে যুগের ‘সেরা চলচ্চিত্র’

১৯২৯ সালে বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপন্যাস ‘পথের পাঁচালী’ অবলম্বনে নির্মিত সিনেমা ‘পথের পাঁচালী’। যুগ যুগ ধরে এই সিনেমা খ্যাতির শীর্ষে। ১৯৫৫ সালে সত্যজিৎ রায়ের কুশলী পরিচালনায় বাংলা চলচ্চিত্রে সৃষ্টি হয় নতুন কাঠামোর এই সিনেমা।

চিরায়ত বাংলার অপরূপ আনন্দ-বেদনার উপন্যাসটি সেলুলয়েডের ফিতায় অসাধারণভাবে ফুটিয়ে তুলেছিলেন সত্যজিৎ।

নিশ্চিন্তপূর নামের বাংলার এক প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চল। প্রধান চরিত্র অপু ও তার পরিবারের জীবনযাত্রার কথাই পথের পাঁচালীর মুখ্য বিষয়। পুরোহিতের ছেলে অপু। অর্থসংকট, দরিদ্রতা, স্বজন হারানোর যন্ত্রণা, ছেলেবেলার অসাধারণ চিত্রায়ণ ঘটেছে এ সিনেমায়। বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের ‘পথের পাঁচালী’ বাংলা সাহিত্যের একটি জীবনীমূলক উপন্যাস। উপন্যাসটিতে একটি দরিদ্র পরিবারের নিজের গ্রামের ভিটেতে টিকে থাকার লড়াই এবং সেই পরিবারের ছেলে অপুর বেড়ে ওঠার গল্প বর্ণিত হয়েছে।

মজার ব্যাপার হচ্ছে, পথের পাঁচালী চলচ্চিত্রের কোনো চিত্রনাট্য লেখা হয়নি। সত্যজিৎ রায়ের আঁকা ছবি ও নোট থেকে এই চলচ্চিত্র নির্মিত হয়েছিল।সত্যজিৎ সেই নোটে লিখেছিলেন, চলচ্চিত্রের প্রয়োজনে উপন্যাসের বেশ কিছু চরিত্রকে সরিয়ে দিয়েছিলেন ও গল্পটিকেও কিছুটা রদবদল করেছিলেন।

এই চলচ্চিত্রের প্রধান চরিত্র অপু। এই চরিত্রে অভিনয় করার জন্য সত্যজিৎ পাঁচ থেকে সাত বছরের শিশুর সন্ধানে সংবাদপত্রে বিজ্ঞাপন দিয়েছিলেন। কিন্তু যারা এসেছিল, তাদের কাউকেই তার পছন্দ হয়নি। কিন্তু সত্যজিতের স্ত্রী বিজয়া রায় তাদের বাড়ির কাছেই সুবীর বন্দ্যোপাধ্যায় নামে একটি ছেলেকে লক্ষ করেন এবং অবশেষে অপুর চরিত্রে তাকেই পছন্দ করা হয়।

চলচ্চিত্রটির আনুমানিক নির্মাণ খরচ ছিল ভারতীয় ৭০,০০০ রুপি। চলচ্চিত্রটির সুর করেন বিশ্বনন্দিত সেতার বাদক রবিশঙ্কর। ১৯৫৮ সালে টাইম পত্রিকা পথের পাঁচালীকে লোককথার ওপর চিত্রায়িত ‘সুন্দরতম চলচ্চিত্র’ বলে অভিহিত করে।

পথের পাঁচালী চলচ্চিত্রটির পর সত্যজিৎ রায়ের অপুর জীবনের গল্প নিয়ে আরও দুটি চলচ্চিত্র নির্মাণ করেন। অপর দুটি ছবি হলো অপরাজিত ও অপুর সংসার।

সিনেমাটি আন্তর্জাতিক অঙ্গনে সমাদৃত প্রথম দক্ষিণ এশীয় চলচ্চিত্রের মর্যাদা লাভ করে, যা পরবর্তী সময়ে পরিণত হয় সর্বকালের অন্যতম সেরা চলচ্চিত্রে।

আপনার মন্তব্য দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন

- Advertisment -
  • সর্বশেষ
  • আলোচিত

সাম্প্রতিক মন্তব্য

স্বঘোষিত মহাপুরুষ on লকডাউন বাড়লো আরও একসপ্তাহ
জান্নাতুল ফেরদৌস on চিরবিদায় কিংবদন্তি কবরীর