Home ব্যবসা- বাণিজ্য অর্থনীতি মার্চ থেকে বাজারে খোলা তেল বিক্রি বন্ধ

মার্চ থেকে বাজারে খোলা তেল বিক্রি বন্ধ

মার্চ থেকে বাজারে খোলা তেল বিক্রি বন্ধ
পেক্সেল

আগামী বছরের মার্চ মাস থেকে দেশের বাজারে খোলা সয়াবিন,পাম, সুপারপাম তেল বিক্রি বন্ধ হতে যাচ্ছে। ভেজাল প্রতিরোধ, দাম তদারকি এবং ভিটামিন সংযোজন নিশ্চিত করতেই এই উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রনালয়। মোড়কজাত করে ভোজ্যতেল বিক্রিতে লিটারে ১০ থেকে ১৫ টাকা দাম বাড়বে বলে মনে করছেন বাজারজাতকারীরা।

রাজধানীর পাইকারি বাজারে ট্রাকে ট্রাকে আসে ভোজ্যতেলের ড্রাম। দেশের কয়েকটি প্রতিষ্ঠান এভাবে খোলা সয়াবিন,পাম ও সুপারপাম অয়েল বাজারজাত করলেও কোন ড্রামেই দেখা যায়নি তাদের নাম বা পণ্যের বিবরণ।

যেসব খুচরা বিক্রেতা পাইকারি বাজার থেকে ড্রামবোঝাই এ খোলা ভোজ্যতেল কিনে নেন, তারাও কিনছেন নাম না জেনেই।

খুচরা বাজারে বোতলজাত তেলের তুলনায় ড্রামের তেলই বেশি বিক্রি হয়। এক্ষেত্রে সয়াবিন থেকে দামে কম হলেও, শীতকাল ছাড়া অন্য মৌসুমে পাম ও সুপারপাম তেল চেনা কঠিন বলে জানান বিক্রেতারা।

বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব এ এইচ এম শফিকুজ্জামান বলেন, ভোজ্যতেলে ভিটামিন এ, ডি, ই নিশ্চিত করার আইনি বাধ্যবাধকতা থাকলেও খোলা তেলে অনেক ক্ষেত্রেই তা মানা হচ্ছেনা। সেইসাথে ভেজালের ঝুঁকি বিবেচনায় প্যাকেজিং এ জোর দিচ্ছে সরকার।

এরইমধ্যে, প্যাকেজিং এর প্রস্তুতি নেয়া শুরু করেছে ভোজ্যতেল বাজারজাতকারী প্রতিষ্ঠানগুলো। তবে, তাদের মতে, নিম্ন আয়ের মানুষের কথা মাথায় রেখে এ লক্ষ্যমাত্রা বাস্তবায়ন করা উচিৎ কয়েকধাপে।

প্রতিবছর দেশে ২০ থেকে ২২ লাখ মেট্রিক টন অপরিশোধিত ভোজ্যতেল আমদানি হয় , বর্তমানে যার ২০ থেকে ২৫ শতাংশ বোতলজাত হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here